প্রধান প্রধান বন্দরগুলিতে পরিচালনগত পরিষেবার জন্য সরকারি-বেসরকারি অংশীদারিত্ব

২০২১-২২ অর্থবর্ষের বাজেটে প্রধান প্রধান বন্দরগুলিতে পরিচালনগত পরিষেবার জন্য ২ হাজার কোটি টাকার সংস্থান রাখা হয়েছে। এর ফলে, ৭টি প্রকল্প সরকারি-বেসরকারি অংশীদারিত্বে গড়ে তোলা হবে। সংসদে আজ বাজেট পেশ করার সময় অর্থ ও কর্পোরেট বিষয়ক মন্ত্রী শ্রীমতী নির্মলা সীতারমন বলেছেন, প্রধান প্রধান বন্দরগুলি তাদের পরিচালন পরিষেবার জন্য মডেল গড়ে তুলবে, যেখানে বেসরকারি সংস্থাগুলি এই পরিচালনার কাজটি করবে।

ভারতে বাণিজ্যিক জাহাজ চলাচলের বিষয়ে উৎসাহ দেওয়ার জন্য মন্ত্রী ১ হাজার ৬২৪ কোটি টাকার একটি ভর্তুকি সহায়ক প্রকল্প চালুর প্রস্তাব করেছেন। পাঁচ বছর ধরে ভারতীয় জাহাজ কোম্পানিগুলিকে বিভিন্ন মন্ত্রক এবং রাষ্ট্রায়ত্ত প্রতিষ্ঠানগুলি আন্তর্জাতিক টেন্ডারের মাধ্যমে সহায়তা করবে। এর ফলে, ভারতীয় জাহাজ কর্মীদের প্রশিক্ষণ এবং কর্মসংস্থানের সুযোগ বাড়বে। এছাড়াও, আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে ভারতীয় সংস্থাগুলির অংশীদারিত্ব বৃদ্ধি পাবে।

২০২৪ সালের মধ্যে পুরনো জাহাজ থেকে পুনর্ব্যবহারযোগ্য সামগ্রী বের করার ক্ষমতা প্রায় ৪৫ লক্ষ লাইট ডিসপ্লেসমেন্ট টন করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। অর্থমন্ত্রী বলেছেন, ইউরোপ ও জাপান থেকে আরও জাহাজ এর ফলে ভারতে আসবে। হংকং আন্তর্জাতিক কনভেনশনের মান্যতাপ্রাপ্ত গুজরাটের আলাং – এ ৯০টি জাহাজ পুনর্ব্যবহারযোগ্য ইউনিট বর্তমানে কাজ করছে। সরকারের নতুন উদ্যোগের ফলে আরও দেড় লক্ষ কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে।

News Desk

News Desk

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *