বাড়ি ফিরলেন মমতা

নন্দীগ্রামে ভোট প্রচারে আহত হওয়ার দুদিন পর হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার সন্ধ্যায় এসএসকেএম হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফেরেন মমতা। এসএসকেএম এর অধিকর্তা মনিময় বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন ছয় সদস্যের মেডিকেল বোর্ড এদিন আর এক দফা তাঁর শারীরিক অবস্থা পর্যালোচনা করেন। সকালে তাঁর পায়ের প্লাস্টার খোলা হয়। ফোলা অনেকটাই কমেছে। ব্যথাও কম। চিকিৎসায় সাড়া দিচ্ছেন তিনি। ৪৮ ঘন্টা পর্যবেক্ষণে থাকতে বলা হলেও মুখ্যমন্ত্রী বার বার অনুরোধ করায় তাঁকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে। ছুটি পাওয়ার পর তাঁর কি কি করণীয়, সে সম্পর্কে বিস্তারিত পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।
হাসপাতাল থেকে ফিরলেও বেশ কয়েকদিন হুইলচেয়ারেই কাটাতে হবে মমতাকে৷ কীভাবে হুইলচেয়ার ব্যবহার করতে হবে, তা ভালভাবে মুখ্যমন্ত্রীকে বুঝিয়ে দিয়েছেন চিকিৎসকরা৷ একই সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর পরিবারের সদস্য এবং দেহরক্ষীদের বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে, যাতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাঁ পায়ে কোনও ভাবে চাপ না পড়ে বা নতুন করে আঘাত না লাগে৷
নন্দীগ্রামে প্রচারে গিয়ে গত বুধবার আহত হন মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়৷ তার পর সেখান থেকেই তাঁকে সরাসরি এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে এসে ভর্তি করা হয়৷
এ দিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে দেখতে হাসপাতালে যান সমাজকর্মী মেধা পাটকর৷ পাশাপাশি হাসপাতালে উপস্থিত ছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ফিরহাদ হাকিম৷

News Desk

News Desk

প্রাসঙ্গিক বিষয়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *