আক্রান্ত হলে ফের গুলি চালাতে পারে বাহিনী, স্পষ্ট জানালেন বিশেষ পর্যবেক্ষক

আক্রান্ত হলে ফের গুলি চালাতে পারে বাহিনী, স্পষ্ট জানালেন বিশেষ পর্যবেক্ষক

চতুর্থ দফার কোচবিহারের শীতলকুচিতে যা হয়েছিল তার পূনরাবৃত্তি চায় না নির্বাচন কমিশন। তবে সাধারণ ভোটার বা নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা আধা সামরিক বাহিনীর জওয়ানদের নিরাপত্তার সঙ্গে কোন আপোষ করা হবে না বলে স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিল কমিশন। কমিশনের বিশেষ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবে কমিশনের এই মনোভাব স্পষ্ট করে দিয়েছেন। পরিস্থিতি তৈরি হলে আগামী পর্যায়ের ভোটেও কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা গুলি চালনার মতো কড়া সিদ্ধান্ত নিতে পারে বলে স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিয়েছেন বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক।

গত শনিবার চতুর্থ দফার ভোটের দিন শীতলকুচির ১২৬ নম্বর বুথে কেন্দ্রীয় আধাসেনা বাহিনীর গুলিতে মৃত্যু হয়েছিল চার গ্রামবাসীর। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছিল, ৩০০-৪০০ জন ঘিরে ধরায় আত্মরক্ষার স্বার্থে বাহিনীকে গুলি চালাতে হয়। এই ঘটনার পর থেকে রাজনৈতিক চাপানউতোর উঠেছে তুঙ্গে। তবে কমিশনের বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, জওয়ানদের উপর আক্রমণ হলে গুলি চলবেই।

অর্থাৎ একটা বিষয় আবারও স্পষ্টভাবে বুঝিয়ে দিতে চাওয়া হয়েছে, গুলি চালানোর ঘটনা নিয়ে রাজনীতির ময়দানের জল যতই ঘোলা হোক না কেন, কমিশনে নিজের সিদ্ধান্তে অনড় থাকছে। তবে কমিশন সূত্রে খবর, শীতলকুচির ঘটনায় সিআইএসএফ-র পক্ষ থেকে অভ্যন্তরীণ তদন্ত শুরু করা হয়েছে। সূত্রের খবর, কেন গুলি চালানো হল, কী পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল তা খতিয়ে দেখা হবে।
অন্যদিকে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি এবং তাতে চার গ্রামবাসীর মৃত্যুর ঘটনাকে দুঃখজনক বলে আখ্যা দিয়েছেন বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবে। তবে তিনি আবারও সাফ করে দিয়েছেন যে আত্মরক্ষার জন্য প্রয়োজনে আবারও গুলি চালানো হবে। যদি কেন্দ্রীয় আধাসেনা বাহিনীর উপর ভবিষ্যতে আক্রমণ হয়, তবে গুলি চালানো হবে। এর পাশাপাশা সূত্র মারফৎ জানা গিয়েছে, কোভিড পরিস্থিতির জেরে উত্তরবঙ্গের সফর বাতিল করেছেন দুই পর্যবেক্ষক। পরিবর্তে ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে সেই বৈঠক হবে।

News Desk

News Desk

প্রাসঙ্গিক বিষয়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *